পর্ণগ্রাফি দেখা ছেড়ে দিলে কি হবে?(After quitting porn)

 

porn dekha chere dile ki hoy, পর্ণগ্রাফি ছেড়ে দিলে কি হয় এবং এটা ছাড়া এতো কষ্টকর কেন,porn না দেখলে কি হয়,পর্ণগ্রাফি ছাড়তে কত সময় লাগে,pornography ছাড়ার পর যা যা ঘটে ব্রেনে
পর্ণগ্রাফিতে আসক্ত(porn addiction)  হলে তা দেখা ছেড়ে দিলে ধীরে ধীরে ব্রেন heal করতে শুরু করে এবং মানসিকভাবে সুস্থ থাকা যায়। পর্ণ ছাড়ার সময় ব্রেনের আসক্তির কারণে যন্ত্রণাও সহ্য করতে হয়।
যৌন স্বাস্থ্য পরামর্শ by health science 

শুধুমাত্র হাতে একটি ফোন ও ইন্টারনেট থাকলেই সহজেই পর্ণগ্রাফি(pornography)  দেখা যায়। এবং পর্ণগ্রাফির এই সহজলভ্যতার কারণে পর্ণ আসক্তি দেখা দিন দিন বাড়ছে। 

পর্ণ দেখলে stress কমে, ভালো লাগে, সাময়িকভাবে যৌন আনন্দ পাওয়া যায়, sex সম্পর্কে কিছুটা ধারণা পাওয়া যায়, নিজেকে একটু দুনিয়ার কর্মব্যস্তময় জীবন থেকে মুক্ত করা হয়। আরো কত কি উপকারিতাই বলা যায়।

এসব উপকারিতার নানা বাহনা দিয়ে অনেকেই porn দেখে এবং তাতে আসক্ত হয়। পরবর্তীতে জীবনে এর ভয়াবহ ক্ষতির সম্মুখীন হতে হয় এবং পর্ণগ্রাফি ছাড়ার সিদ্ধান্ত নিতে হয়। 

  পর্ণগ্রাফির এসব উপকারিতা আদৌ স্বাস্থ্যকর কিনা সেটা এটা প্রশ্ন এবং পর্ণগ্রাফি থেকে মুক্ত হওয়ার উপায়গুলো নিয়ে জানা আরেকটা বিষয়। 

তবে পর্ণগ্রাফি এবং এটির আসক্তি সম্পর্কে সঠিক ধারণা নেয়ার পর বা এটি কিভাবে জীবনকে ক্ষতিগ্রস্ত করে, sex life এ হতাশার সৃষ্টি করে ইত্যাদি বিষয়াবলি বুঝার পর অবশ্যই পর্ণগ্রাফি ছেড়ে দিবেন। 

এবং পর্ণগ্রাফি ছেড়ে দিলে কি হয় ও বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই যা ঘটে তা সম্পর্কে জানা প্রয়োজন।

পর্ণগ্রাফি ছাড়লে যা যা হয়?(the things happen after quitting pornography explained in bangla) 

একটি গবেষণায় দেখা গেছে যে যারা পর্ণ ছাড়ার সিদ্ধান্ত নেয় তাদের ৮২% ই তাতে ব্যর্থ হয়। তাই এই ব্যাপারটি সঠিকভাবে বুঝা জরুরি যে porn ছাড়ার সময় কি শারীরতত্ত্বয়(physiological) পরিবর্তন হয় এবং পর্ণ ছাড়তে গেলে কি কি সমস্যার সম্মুখীন হতে হয়ে। 

১ম দিন

পর্ণ ছাড়ার সিদ্ধান্ত নেয়ার পর প্রথম দিন সাধারণত কোনো সমস্যা হয় না। স্বাভাবিকভাবেই দিন কেটে যায়। দৈনন্দিন জীবনের কাজে focus রাখতে তেমন সমস্যা হয় না। 

2য় দিন

Porn ছাড়ার ২দিনেই আপনার physiological পরিবর্তন হতে শুরু করে। এর মানে হচ্ছে ব্রেন ইতোমধ্যে পর্ণ দেখে যে পরিমাণ আসক্ত হয়ে গেছে, সেই আসক্তির কারণে পুনরায় পর্ণ দেখার ইচ্ছা চরমভাবে জাগ্রত হয়। 

দৈনন্দিন কাজে ফোকাস না করতে পারা, মনোযোগে ব্যাঘাত ঘটা, ঘুমানোতে সমস্যা হওয়া ইত্যাদি ঝামেলা দেখা দিবে। 

আসলে পর্ণগ্রাফি আসক্তি ব্রেনের স্বাভাবিক ফাংশনকে বিনষ্ট করে, reward system কে নিয়ন্ত্রণ করে নেয় এবং ব্রেনের grey matter এর পরিবর্তন ঘটায়। ব্রেনের ventral stratitum থেকে ডোপামিন নি:সৃত হয় এবং পর্ণগ্রাফি ব্রেনকে ঐ অঞ্চল থেকে অতিমাত্রায় ডোপামিনের নি:সরণ ঘটায়। 

অতি সহজে অতিমাত্রার ডোপামিনের আনন্দে ব্রেনের নিউরনগুলোকে অতিমাত্রায় উদ্দীপ্ত করে। ব্রেনের নিউরনগুলো পুনরায় সেই ডোপামিন পেতে যায়।(Brain rewires itself to porn stimulus). 

ssupernatural stimulus বা অতিমাত্রায় এই উদ্দীপ্ত হওয়া ব্রেনকে একটা জেলে বন্দি করে। যে জেলে ব্রেন শুধুমাত্র পর্ণই দেখতে চায়। তাই পর্ণগ্রাফি ছাড়া অত্যন্ত কষ্টকর

বিস্তারিত এসব পোস্টে পড়ুন-

আমি কেন পর্ণ ছাড়তে পারি না


এখন জেল থেকে মুক্ত পাওয়ার চেষ্টার প্রচেষ্টার জন্যই ২য় দিনে প্রচন্ড পর্ণ দেখতে না পারার মানসিক যন্ত্রণা হতে থাকে এবং তখন থেকেই ব্রেন heal হওয়া শুরু করে। 

এক্ষেত্রে যাদের PPU(Problematic porn use) রয়েছে অর্থাৎ যারা জানে তাদের জন্য পর্ণ ক্ষতিকর এবং পর্ণ তাদের জীবনে ক্ষতিসাধন করছে। এরা আরো বেশি চিন্তিত(anxiety)  ও হতাশ থাকে পর্ণ ছাড়ার ব্যাপার নিয়ে। 

PPU যাদের আছে তাদের ব্যাপারটা এমন নয় যে তারা বেশি পর্ণ দেখে। ব্যাপারটা হচ্ছে তারা পর্ণ দেখার জন্য আকর্ষণ অনুভব করে তবে তারা পর্ণ পছন্দ করে না।

৪-৭তম দিনের সময়

এই কয়েক দিনের মধ্যেই আবারো পর্ণ(porn) দেখার দুনির্বার আকর্ষণের কারণে বেশিরভাগই পুনরায় পর্ণ দেখে এবং এই লুপ থেকে বের হতে পারে না।ব্রেন যেহেতু পর্ণ দেখে অভ্যস্ত এবং সেভাবেই wired তাই পর্ণগ্রাফি দেখা নিয়ন্ত্রণ করা যায় না।

 পর্ণ ড্রাগের মতোই আসক্তিপূর্ণ এবং অনেকে anxiety এর জন্য পর্ণ দেখে ফেলে। 

porn dekha chere dile ki hoy, পর্ণগ্রাফি ছেড়ে দিলে কি হয় এবং এটা ছাড়া এতো কষ্টকর কেন,porn না দেখলে কি হয়,পর্ণগ্রাফি ছাড়তে কত সময় লাগে,pornography ছাড়ার পর যা যা ঘটে ব্রেনে
পর্ণ ছাড়ার পর বুঝতে পারবেন আপনি পর্ণ আসক্ত কিনা। পর্ণগ্রাফি ছাড়ার পর ব্রেন যদি আসক্ত হয়ে থাকে তবে তা থেকে দ্রুত মুক্ত হয়ে নতুন কিছুতে অভ্যস্ত হতে শুরু করে।
Health tips by health science 




১৪তম দিন

যদি ৪-৭তম দিনে কেউ porn না দেখে অর্থাৎ সঠিক পদ্ধতিতে পর্ণ ছাড়ার ব্যাপারটা সঠিকভাবে বাস্তবায়ন করতে পারে তাহলে ১৪তম দিনে তার ভালো লাগা শুরু করে। 

সে কাজে মনোযোগ দিতে পারে ভালোভাবে এবং যতই দিন যায় ততই পর্ণ না দেখার কষ্ট কমতে থাকে। ব্রেনের neuroplasty( ব্রেন কোনো কাজ দীর্ঘ সময় যাবৎ করতে থাকলে ব্রেনের গঠনের পরিবর্তন হওয়া)এর জন্য ব্রেনের পরিবর্তন হতে শুরু করে।

পর্ণ দেখার কারণে ব্রেনের grey matter এর যে পরিবর্তন হয়েছিল তা স্বাভাবিক হতে শুরু করে। সর্বোপরি ভালো লাগা শুরু করে।

তবে অবশ্যই কোনো Healthy routine এ নিজেকে অভ্যস্ত করাতে হবে যাতে ব্রেনের neuroplasty এর জন্য ব্রেন নতুন অভ্যাসে(wire) অভ্যস্ত হতে পারে।

৩০তম দিন

পর্ণ ছেড়ে দেয়ার ১ মাস পর ব্রেন অনেকটাই heal হয়ে যায় এবং বলা যায় যে পর্ণ থেকে আপনি অনেকটাই মুক্ত। তবে হ্যা অবশ্যই porn দেখার রুটিন এর বদলে একটা Healthy রুটিন মানতে হবে। দৈনন্দিন জীবনে কর্মব্যস্ত থাকতে হবে। নতুবা পর্ণে পুনরায় আসক্ত হবেন।

৩০দিনের মাথায় আপনার যে ভালো লাগা শুরু হয়েছে তার পরিবর্তন আপনি নিজেই উপলব্ধি করতে পারবেন।

৯০দিন বা ৩মাস 

৩মাস বলা যায় পর্ণ থেকে আপনি সম্পূর্ণ মুক্ত এমনটা বলা যায়। তবে তা ব্যক্তিভেদে অবশ্যই পরিবর্তনশীল। অনেকের সম্পূর্ণ মুক্ত হতে আরো সময় লাগে। 

তবে গড় হিসাব করলে ৯০দিনের সময় পর্ণ দেখার কারণে ব্রেনের grey matter এর যে পরিবর্তন হয় তা সম্পূর্ণ স্বাভাবিক হতে শুরু করে এবং পর্ণ থেকে ব্রেন মুক্ত হয়ে অন্য কোনো ভালো অভ্যাসে ব্রেন rewire করতে শুরু করে বা ভালো অভ্যাসটা আয়ত্ত করতে শিখে যায়। 

গড়ে পর্ণ থেকে মুক্ত হতে ৩০-৯০দিন সময় লাগে এবং পর্ণ আসক্তির ভয়াবহতা ও মাত্রার ওপর তা ১-৩ বছরও লেগে যেতে পারে। 

তবে ব্রেন heal করে ১-২দিন থেকেই এবং দিন যতই যায় পর্ণ ছাড়া ততই সহজ হয়ে যায়।

এবং পর্ণ ছাড়ার সময় ব্রেনের পর্ণ আসক্তির(porn addiction) জন্য একটি মানসিক যন্ত্রণার শিকার হতে হয়। এই মানসিক যন্ত্রণার মাত্রা আপনি পর্ণ কি পরিমাণ আসক্ত(porn addiction) বা আপনার ব্রেন কি পরিমাণ supernatural stimulus এ নিজেকে rewire করেছে তার ওপর নির্ভর করে। 

Post a Comment

0 Comments